মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় চিকিৎসাধীন দুই কলেজছাত্রের মৃত্যু

ঢাকার নবাবগঞ্জ উপজেলায় মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় চিকিৎসাধীন দুই কলেজছাত্র প্রান্তিক (২০) তার বন্ধু আলভীর (২১) মৃত্যু হয়েছে। আলভী শনিবার ভোরের দিকে রাজধানীর কাকরাইলের ইসলামী ব্যাংক হাসপাতালের আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায়। প্রান্তিক একই দুর্ঘটনায় শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬ টার দিকে রাজধানীর হলি ফ্যামিলি হাসপাতালের আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায়।

প্রান্তিক ও আলভী দুইজনই এইচএসসি দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র ছিলো। আলভীর মামা মাসুদ সকালে মৃত্যুর বিষয় নিশ্চিত করেছেন। প্রান্তিকের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন তার ছোট চাচা মেজবাহ উদ্দিন পরাগ।

নিহত প্রান্তিক উপজেলার কলাকোপা ইউনিয়নের বাগমারা গ্রামের মহসিন উদ্দিন পলাশের ছেলে ও আলভী একই ইউনিয়নের জালালপুর গ্রামের আলী আজমের একমাত্র ছেলে।

নিহতের চাচা পরাগ জানান, বাল্যবন্ধু আলভীর ডাকে সাড়া দিয়ে বাবার কাছ থেকে মোটরসাইকেল নিয়ে ঘুরতে বের হয় দুই বন্ধু। প্রান্তিক মোটরসাইকেল চালাচ্ছিল আর আলভী পেছনে বসা ছিল। ঘুরাঘুরি শেষে রাত ১১ টার দিকে বেপরোয়া গতিতে মোটরসাইকেল চালিয়ে বাড়ির ফেরার পথে প্যারাগন হাসপাতালের সামনের আঞ্চলিক সড়কে মোটরসাইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে আরো একটি মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দিয়ে তারা দুজন ছিটকে পড়ে মারাত্মক আহত হয়। স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শীরা তাৎক্ষণিক তাদের দুজনকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে দায়িত্বরত চিকিৎসক অবস্থা আশঙ্কাজনক দেখে দুজনকেই উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দিলে সঙ্গে সঙ্গে অ্যাম্বুলেন্সে করে তাদের রাজধানীর দুই হাসপাতালে নেওয়া হয়।নবাবগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ জানান, দুর্ঘটনার পরপরই পুলিশ দুর্ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে ও দুর্ঘটনা কবলিত মোটরসাইকেলটি জব্দ করা হয়েছে। তবে দুর্ঘটনার বিষয়ে এখনও থানায় কেউ কোনো অভিযোগ করেনি।

Rupantor Television

A IP Television Channel

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »