ফেডারেশন কাপ ফুটবল শুরু আজ

অনেক প্রতীক্ষার ঘরোয়া ফুটবল মাঠে গড়াচ্ছে আজ। ফেডারেশন কাপ দিয়ে আবার মাঠে ফিরছেন দেশের ক্লাব ফুটবলের বড় মঞ্চের খেলোয়াড়েরা। ফেডকাপের গত ফাইনালে বসুন্ধরা কিংস রহমতগঞ্জকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল। সেই দুই দলই আজ বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে উদ্বোধণী ম্যাচে নামবে সাড়ে ৫টায়।

করোনার কারণে সেই মার্চে লিগ বন্ধ হয়ে গেলে সেটা বাতিল করা হয়েছিল। নভেম্বরে বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে নেপালের বিপক্ষে বাংলাদেশের লড়াই দেখেছে দর্শক। সেটি জাতীয় দলের দুই ডজন ফুটবলারের খেলা। কিন্তু অন্যান্য ক্লাবের খেলোয়াড়েরা ছিলেন মঞ্চের বাইরে। তাদের অপেক্ষার অবসান হয়েছে। করোনার বিরুদ্ধে মানুষের লড়াই চলছে। তাই বলে থেমে নেই ফুটবল দুনিয়া। টিভির পর্দা কাঁপাচ্ছে ইউরোপিয়ান ফুটবল। দেশের ফুটবলাররা বসে থাকতে পারেন না। তাদের রুটি-রুজির ব্যাপার।

ফেডারেশন কাপ ফুটবলে ১৩ দল খেলবে। ব্রাদার্স ইউনিয়ন নিয়ম ভেঙেও খেলবে। প্রশ্ন উঠবে, তাই গতকাল বাফুফে ভবনে সংবাদ সম্মেলনে ব্রাদার্সের নীতিনির্ধারকদের কেউ আসেননি, মুখ লুকিয়েছেন। সংকটে প্রশ্ন উঠবে এটাই তো স্বাভাবিক। তাই বলে দৃশ্যপট থেকে অভিভাবকদের উধাও হয়ে যাওয়াটাই বা কতটা শোভনীয়। সাংগঠনিক দক্ষতার পরিচয় দিতে পারেনি তারা। এশিয়ান কোটায় এক জনসহ চার জন খেলবেন বিদেশি কোটায়।

২০ দেশের ৫২ ফুটবলে বিদেশি খেলোয়াড় চার জন। এর মধ্যে পেলে-নেইমারের দেশ ব্রাজিলের ছয় জন, ম্যারাডোনার আর্জেন্টিনা থেকে এক জন। দিদিয়ের দ্রগবার আইভরি কোস্টের ছয় জন, চিমা-এমেকার দেশের ৯ জন ছাড়াও গাম্বিয়া, কঙ্গো, হাইতি, মিশর, ঘানা, ক্যামেরুন, জাপান, কিরগিজস্তান, ইরান, তাজিকিস্তান, অস্ট্রেলিয়া, মালি, গিনি, আফগানিস্তানের ফুটবলার এসেছেন।

বিদেশি কোচও এসেছেন অনেক দলে। বেলজিয়াম, স্পেন, ভারত, শ্রীলঙ্কা, পর্তুগাল, ইংল্যান্ড থেকে আসা কোচ বিভিন্ন দলে কাজ করছেন। আরো দুই দলে আসবেন দুজন।

করোনা টেস্ট ছাড়া মাঠে নামা যাবে না। ম্যাচের ৭২ ঘণ্টা আগে টেস্টের রিপোর্ট জমা দিতে হবে। এরই মধ্যে কয়েকটি দল রিপোর্ট জমা দিয়েছে বলে গতকাল জানিয়েছে বাফুফে। কোনো দল যদি বাফুফের সহায়তা নিতে চায়, তাহলে সেটা পাবে।

রেফারি নিয়ে কথা হয়েছে। ৩৫ জন রেফারিকে রিফ্রেসার্স করিয়েছেন রেফারিজ কমিটির চেয়ারম্যান জাকির হোসেন চৌধুরী। গতকাল দিনভর বাফুফে ভবনে সেটি হয়েছে। বাফুফের একাধিক সদস্য ডাগআউটে থাকবেন। তাদের উপস্থিতি রেফারিকে প্রভাবিত করতে পারে। সেটি যেন না হয় শেখ জামালের কোচ শফিকুল ইসলাম মানিক অনুরোধ জানিয়ে বলেছেন, ‘সবার জন্য লেভেল প্লেইং ফিল্ড হওয়া উচিত।’ জাকির হোসেন বলেছেন, ‘কড়া নির্দেশনা দেওয়া হচ্ছে পক্ষপাতমূলক আচরণ যেন না হয়।’ ফেডারেশন সভাপতি কাজী সালাহউদ্দিনও রেফারীদের সঙ্গে বৈঠক করেছে কাল। স্বাধীণভাবে খেলা পরিচালনা করতে নির্দেশ দিয়েছেন। বলেছেন, ‘আপনি আপনার বিবেক দিয়ে কাজ করবেন। আপনাকে রক্ষা করব আমি। আমি কোনো দিন কোনো ক্লাবকে সাপোর্ট দিতে বলিনি। বলবও না।’

উদ্বোধনী ম্যাচ

বসুন্ধরা কিংস বনাম রহমতগঞ্জ

আজ সন্ধ্যা ৫টা ৩০

এ গ্রুপ ; শেখ জামাল, শেখ রাসেল, পুলিশ

বি গ্রুপ : সাইফ স্পোর্টিং, আরামবাগ, ব্রাদার্স, উত্তর বারীধারা

সি গ্রুপ : বসুন্ধরা, চট্টগ্রাম আবাহনী, রহমতগঞ্জ

ডি গ্রুপ : আবাহনী, মুক্তিযোদ্ধা, মোহামেডান

Rupantor Television

A IP Television Channel

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »