ক্যামেরা ছাড়াই আইফোন ১২’র দাম ৪ লাখ টাকা

সচরাচর ক্যামেরা দেখিয়েই নতুন আইফোন বিক্রির চেষ্টা করে অ্যাপল। তবে এক রুশ প্রতিষ্ঠান হেঁটেছে উল্টো পথে। যাঁরা আইফোনে ক্যামেরা চান না, তাঁদের জন্য নকশা বদলে দুটি মডেলে আইফোন বিক্রি শুরু করেছে ক্যাভিয়ার নামের প্রতিষ্ঠানটি।

ক্যাভিয়ারের নকশায় তৈরি আইফোন ১২ প্রো এবং ১২ প্রো ম্যাক্স মডেল দুটির পেছন থেকে ক্যামেরা সরিয়ে ফেলা হয়েছে। আর বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে সামনের সেলফি ক্যামেরা। স্মার্টফোন দুটির নাম তারা বলছে, আইফোন ১২ প্রো স্টেলথ এবং ১২ প্রো স্টেলথ গোল্ড। আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্সের বেলাতেও তা প্রযোজ্য। ক্যাভিয়ারের ভাষ্য, আইফোনগুলো তাঁদের জন্য, যাঁরা যেকোনো পরিস্থিতিতে নিরাপদ থাকতে চান। অর্থাত্ ক্যামেরায় গোপন কোনো ছবি যেন না উঠে যায়, সেটাই ক্যাভিয়ারের লক্ষ্য বলে মনে করা হচ্ছে। মজার কিংবা দুঃখের ব্যাপার হলো, এতে দাম কমেনি তো বটেই, বরং বেড়েছে প্রায় পাঁচ গুণ।

অ্যাপলের ওয়েবসাইটে ১২৮ গিগাবাইট স্টোরেজের আইফোন ১২ প্রোর দাম ৯৯৯ ডলার। অথচ একই ধারণক্ষমতার আইফোন ১২ প্রো স্টেলথের দাম পড়বে ৪ হাজার ৯৯০ ডলার। আর আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্স স্টেলথের দাম ধরা হয়েছে ৫ হাজার ৫৩০ ডলার। দুটি মডেলেই টাইটানিয়ামের কালো শক্তপোক্ত কেস থাকছে। চাইলে পাশে বা পেছনে কোনো লেখা খোদাই করে নেওয়ার সুযোগও আছে।

আর যাঁরা ক্যামেরাবিহীন আইফোনে আরও অর্থ ঢালতে চান, তাঁদের জন্যও ব্যবস্থা রেখেছে ক্যাভিয়ার। টাইটানিয়ামের কেসের ওপরে সোনার আবরণ থাকবে তাতে। আর মডেলের নামের সঙ্গে যুক্ত হবে ‘গোল্ড’। আইফোন ১২ প্রো স্টেলথ গোল্ডের দাম শুরু হয়েছে ৫ হাজার ৫২০ ডলার থেকে। আর ১২ প্রো ম্যাক্স স্টেলথ গোল্ড কিনতে চাইলে পড়বে ৬ হাজার ৬০ ডলার।

দাম শুনে হতাশ হওয়ার কিছু নেই। শিপিং চার্জ অর্থাত্ পণ্য ক্রেতার কাছে পৌঁছে দেওয়ার জন্য কোনো খরচ তারা নিচ্ছে না। আর আইফোনে নিজের চেহারা দেখিয়ে আনলক করার সুবিধা অর্থাত্ ফেস আইডি ঠিকঠাক কাজ করবে। কারণ সামনের ক্যামেরা বন্ধ করা হলেও ট্রু-ডেপথ সেন্সর সচল থাকবে।

এত কিছুর পরও ক্যাভিয়ারের আইফোনগুলো কিনতে চাইলে জানিয়ে রাখি, প্রতিটি মডেলের কেবল ৯৯টি করে আইফোন বানাচ্ছে তারা।

Rupantor Television

A IP Television Channel

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »