ভাগ্নের প্রাক্তন স্ত্রীর বিরুদ্ধে কোটি টাকার মানহানির মামলা মহেশ ভাটের

ভাগ্নে সুমিত সাবরওয়ালের প্রাক্তন স্ত্রী লবিনা লোধের বিরুদ্ধে ১ কোটি টাকার মানহানির মামলা করলেন পরিচালক, প্রযোজক মহেশ ভাট। গত বৃহস্পতিবার একটি ইনস্টাগ্রাম ভিডিওয় লবিনা মহেশের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ এনেছিলেন। ওই ভিডিওয় তিনি স্পষ্টই বলেছিলেন, মহেশ ভাট একজন অত্যন্ত প্রভাবশালী এবং ক্ষমতাশালী ব্যক্তি। উনি আমার এবং আমার পরিবারের ক্ষতি করতে চাইছেন। উনি যে কত অভিনেতা, পরিচালক এবং সঙ্গীত পরিচালকের কেরিয়ার স্রেফ একটা ফোনে শেষ করে দিয়েছেন, ভাবা যায় না। উনি একটা ফোন ঘোরান আর বিভিন্ন লোকের কাজ চলে যায়!

লবিনার ওই বক্তব্যের প্রেক্ষিতেই বম্বে হাইকোর্টে মহেশের তরফে ১ কোটি টাকার মানহানির মামলা করা হয়েছে। তার আগে শুক্রবারেই মহেশের হয়ে লবিনাকে তাদের টুইটারে হুঁশিয়ারি দিয়েছিল ‘বিশেষ ফিল্মস’।

প্রসঙ্গত, লবিনা ওই ১ মিনিট ৪৮ সেকেন্ডের ভিডিওয় তার প্রাক্তন স্বামী সুমিতের বিরুদ্ধেও মারাত্মক অভিযোগ এনেছিলেন। তার এবং পরিবারের নিরাপত্তার জন্য তিনি ওই ভিডিওটি করছেন জানিয়ে লবিনা সেখানে বলেছিলেন, মহেশের ভাগ্নে সুমিত বলিউডের বিভিন্ন তারকাকে মাদক সরবরাহ করেন। লবিনার কথায়, ওর ফোনে বিভিন্ন মহিলার বিভিন্ন ধরনের ছবি থাকে। সেগুলো ও বহু পরিচালককে দেখায়। তাদের মেয়ে সরবরাহও করে।

এরই পাশাপাশি লবিনা বলেছেন, মহেশ ভাট হলেন এই ইন্ডাস্ট্রির ডন! উনি বহু লোকের জীবন এবং কেরিয়ার বরবাদ করে দিয়েছেন। ওর ভাগ্নের বিরুদ্ধে আমি ডিভোর্স ফাইল করেছি। তার পর থেকেই মহেশ ভাট আমার এবং আমার পরিবারের ক্ষতি করার চেষ্টা করছেন। যদি এর পর আমার এবং আমার পরিবারের কারও কোনও ক্ষতি হয়, তার জন্য মহেশ ভাটরা দায়ী থাকবেন।

ওই ভিডিও প্রকাশ্যে আসার পরেই মহেশ মানহানির মামলা করেছেন। সূত্রের খবর, লবিনার আইনজীবী বলেছেন, এর পর থেকে তার মক্কেল আর ওই ধরনের কোনও অভিযোগ আনবেন না। এখন দেখার, লবিনার তরফে ওই ঘোষণার পর মহেশ মামলা থেকে সরে আসেন কি না।

প্রসঙ্গত, সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর ঘটনাতেও মহেশের নাম উঠে এসেছিল। মুম্বাই পুলিশ গত ২৭ জুলাই তাকে সান্তাক্রুজ থানায় ডেকে পাঠিয়ে জেরাও করেছিল। তিনি বলেছিলেন, জীবনে মাত্র দু’বার তার সঙ্গে সুশান্তের দেখা হয়েছিল।

Rupantor Television

A IP Television Channel

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »