টিকটক বন্ধে ট্রাম্পের নির্দেশ স্থগিত করল আদালত

চীনের সঙ্গে সম্পর্কে চলমান উত্তেজনা-উদ্বেগের মধ্যেই ‘জাতীয় নিরাপত্তার জন্য হুমকি’ অভিহিত করে যুক্তরাষ্ট্রে চীনা মালিকানাধীন জনপ্রিয় ভিডিও শেয়ারিং অ্যাপ টিকটককে নিষিদ্ধ ঘোষণা করে তা বন্ধের নির্দেশ দিয়েছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। কিন্তু সেই নির্দেশ দেশটির একটি আদালত স্থগিত করেছে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদন অনুযায়ী মার্কিন বাণিজ্য মন্ত্রণালয় টিকটককে যে এক সপ্তাহের সময় বাড়িয়ে দিয়েছিল, তা পার হয়েছে শনিবার।

পূর্ব সিদ্ধান্ত অনুসারে অ্যাপ স্টোর থেকে টিকটককে রোববার মুছে দেয়ার কথা ছিল। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটনের এক বিচারকের নিষেধাজ্ঞার রায়ে এ যাত্রায় রেহাই পেলো টিকটক।

টিকটকের মালিকানা কোম্পানি বাইটড্যান্সের আবেদনে সাড়া দিয়ে প্রাথমিক এক নিষেধাজ্ঞার আবেদনে অনুমোদন দিয়েছেন মার্কিন ডিস্ট্রিক্ট কোর্টের বিচারক কার্ল নিকোলাস।

ফলে যুক্তরাষ্ট্রের অ্যাপ স্টোর থেকে টিকটককে এখনই আর মুছে দেয়া যাচ্ছে না। এর আগে চীনা বার্তা আদান-প্রদান অ্যাপ উইচ্যাটও রক্ষা পায়।

তবে নভেম্বরের শুরুতে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের এক সপ্তাহ পর আরও ব্যাপক নিষেধাজ্ঞার যে পরিকল্পনার যে ঘোষণা ট্রাম্প প্রশাসন দিয়েছে, বিচারক কার্ল নিকোলাস অবশ্য সেই নিষেধাজ্ঞা স্থগিত করতে রাজি হননি। ফলে নভেম্বরের নিষেধাজ্ঞা আরোপ হয়ে গেলে যুক্তরাষ্ট্রে টিকটক অ্যাপ ব্যবহার অসম্ভব হয়ে দাঁড়াবে।

টিকটক প্রশ্নে দুটি নির্বাহী আদেশে স্বাক্ষর করেছেন ট্রাম্প। প্রথমটির মাধ্যমে টিকটক নিষিদ্ধ করেছেন তিনি, আর দ্বিতীয়টির মাধ্যমে টিকটক মালিক বাইটড্যান্সকে প্রতিষ্ঠানটির যুক্তরাষ্ট্র ব্যবসা বিক্রির নির্দেশ দিয়েছেন।

টিকটকের মার্কিন ব্যবসা কেনার জন্য আগ্রহ প্রকাশ করেছিল মাইক্রোসফট, টুইটার, ওরাকল, ওয়ালমার্টের মতো প্রতিষ্ঠান। এর মধ্য থেকে ওরাকলের সঙ্গে অংশীদারি চুক্তিতে যাওয়ার আগ্রহ প্রকাশ করেছে টিকটক।

Rupantor Television

A IP Television Channel

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »