আগামী ১৯ সেপ্টেম্বর সংযুক্ত আরব আমিরাতে শুরু হচ্ছে আইপিএল। মেগা টুর্নামেন্টে খেলার জন্য দু’‌টি দলের তরফ থেকে অফার দেওয়া হয়েছিল বাংলাদেশের বাঁহাতি পেসার মুস্তাফিজুর রহমানকে। কিন্তু বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের ছাড়পত্র না মেলার কারণেই এবারের আইপিএল খেলা হল না প্রতিশ্রুতিমান এই বোলারের।

হ্যারি গার্নি চোট পাওয়ার পর কলকাতা নাইট রাইডার্সের তরফ থেকে নিলামে অবিক্রিত থাকা মুস্তাফিজুরকে প্রস্তাবদেওয়া হয়। এরপর লাসিথ মালিঙ্গা সরে দাঁড়ানোয় রোহিত শর্মার মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সও তাকে নিজেদের দলে নিতে চায়। কিন্তু বিসিবি তাকে ছাড়তে রাজি হয়নি। আগামী ২৪ অক্টোবর থেকে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে তিন টেস্টের সিরিজের প্রথমটিতে খেলতে নামবে বাংলাদেশ। আর সেই সিরিজের কথা মাথায় রেখেই নিজেদের সেরা পেসারকে সুস্থ রাখতে চায় বিসিবি। আর তাই আইপিএল খেলার জন্য মুস্তাফিজুরকে এনওসি দেয়নি তারা।

মুস্তাফিজকে অনাপত্তিপত্র না দেয়ার কারণ সম্পর্কে বিসিবির ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের প্রধান আকরাম খান বলেন, কিছুদিন আগে তাকে নেয়ার জন্য আইপিএলের ফ্র্যাঞ্চাইজি প্রস্তাব পাঠিয়েছিল। সামনে আমাদের গুরুত্বপূর্ণ সিরিজ। মোস্তাফিজ আমাদের গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়। জাতীয় দলের কথা ভেবে তাকে অনাপত্তিপত্র দেয়া হয়নি।

গতকাল শনিবার (৫ সেপ্টেম্বর) বিষয়টি জানিয়েছেন মুস্তাফিজ নিজেই। তিনি বলেন, কলকাতা নাইট রাইডার্স আমাকে দলে নেওয়ার জন্য গত মাসে প্রস্তাব দিয়েছিল। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সও গত মাসে প্রস্তাব দিয়েছিল। আমাকে দলে নেওয়ার বিষয়টি তারা বিসিবিকে জানিয়েছিল। কিন্তু সামনে তো শ্রীলঙ্কা সিরিজ আছে সেজন্য তাদেরকে বিসিবি না করে দিয়েছে।

২০১৬ সাল থেকেই আইপিএলে খেলছেন মুস্তাফিজুর রহমান। সেবছর সানরাইজার্স হায়দরাবাদের হয়ে ১৭ ম্যাচে ১৬টি উইকেট পান তিনি। পরের বছর নিলামে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স তাকে কেনে। কিন্তু মুম্বাই দলে দু’‌বছরে বেশি সুযোগ পাননি তিনি। মাত্র ৮টি ম্যাচ খেলে সাতটি উইকেটে পেয়েছিলেন। আর এবারের নিলামে অবিক্রিতই থেকে গিয়েছিলেন মুস্তাফিজুর। শেষপর্যন্ত মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স ও কলকাতা নাইটরাইডার্স থেকে ডাক পেলেও নিজের দেশের ক্রিকেট বোর্ড থেকে ছাড়পত্র না মেলায় আইপিএল খেলা হচ্ছে না তার।

Rupantor Television

A IP Television Channel

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Translate »